মঙ্গলবার, সেপ্টেম্বর ২৭, ২০২২
spot_img
হোমসাক্ষাতকারহাজারো তরুণের স্বপ্ন পুরণের কারিগর মনিরুলের আজ জন্মদিন!

হাজারো তরুণের স্বপ্ন পুরণের কারিগর মনিরুলের আজ জন্মদিন!

সবাই স্বপ্ন দেখতে ভালোবাসে। আর সবারই আকাঙ্ক্ষা থাকে নিজের স্বপ্ন পূরণের। কিন্তু তাদের মধ্যেই কেউ কেউ আছেন যারা নিজেরা স্বপ্ন দেখেন এবং তা বাস্তবায়ন করেন হাজারো মানুষের স্বপ্ন বাস্তবায়নের মধ্য দিয়ে। তেমনি একজন এই প্রজন্মের তরুণ মনিরুল ইসলাম। তরুণ উদ্যোক্তা এবং সৃজনশীল কাজের কারিগর। শ্রম আর মেধা দিয়ে কাজ করে যাচ্ছেন হাজারো মানুষের স্বপ্ন পূরণের জন্য।

যারা মডেলিং, অভিনয় জগতে কাজ করেছেন, আজকে খ্যাতি পেয়েছেন, প্রতিষ্ঠিত হয়েছেন সমাজে, দেশজুড়ে। তাদের অনেকেরই স্বপ্ন পূরণ হয়েছে এই স্বপ্নবাজ তরুণের হাত ধরে। সেই তরুণ হলেন ‘ভারতুসো’ মিডিয়া ওয়ার্ল্ড’র সিইউ মনিরুল ইসলাম। ‘ভারতুসো’ মিডিয়া ওয়ার্ল্ড একটি বিজ্ঞাপন এজেন্সি। ‘ভারতুসো’র অন্যতম তরুণ সফল উদ্যোক্তা মনিরুল ইসলাম।
তার কাছে জানতে চেয়েছিলাম, ক্যারিয়ারের এতো মাধ্যম থাকতে এই পেশায় কেন এলেন? সদা হাস্যজ্জ্বল এই তরুণ চটপটে উত্তর দিলেন, ‘এই পেশার প্রতি আগ্রহ হয়েছে পারিবারিকভাবে। ‘ভারতুসো’ নামেই আমার ভাই এই এজেন্সিটা দিয়েছিলেন। পরবর্তীতে পেশার প্রতি আগ্রহের কারণে আমি নিজেই ‘ভারতুসো’ মিডিয়া ওয়ার্ল্ড নামে এই বিজ্ঞাপন এজেন্সির লাইসেন্স নেই। ইতোমধ্যে তিনি তার এজেন্সির মাধ্যমে অনেকগুলা কাজ করেছেন । বাংলাদেশের প্রায় সবক’টি টেলিকমিউনিকেশন এবং ব্যাংক, বেভারেজ কোম্পানিগুলোর সাথে কাজ করার অভিজ্ঞতা আছে তার। সেই সাথে হাজারো মডেল অভিনেতা অভিনেত্রীর স্বপ্ন পূরণ কর চলেছেন।
নুসরাত ফারিয়া, শারিকা, শখ’র মতো নামি দামি তারকার কাজের শুরুটা মনিরুলের হাত ধরেই। একরকম মিডিয়ার প্রতি ভালোবাসা আর কাজের প্রতি দায়িত্ববোধ থেকেই তিনি বীজ বুনছেন, আগামী ভবিষ্যতের জন্য। মিডিয়া এজেন্সির ভবিষ্যতকে তিনি সম্ভাবনাময় এবং সম্মানজনক বলে মন্তব্য করেন। যেসব তরুণরা চ্যালেঞ্জ নিতে পছন্দ করেন তাদেরকে এই পেশায় আসার আমন্ত্রণ জানিয়েছেন।
এই স্বপ্নবাজ তরুণের শুরুর পথটা মোটেই সুগম ছিল না। প্রত্যেকের মতো তিনিও ধৈর্য্য ধরেছেন, এবং তা বাস্তবায়নে প্রতিজ্ঞায় অবিচল থেকেছেন, স্বপ্ন দেখেছেন। এই পেশায় যারা আসতে চান তাদের উদ্দ্যেশ্যে তিনি বলেন, পারবিারিক সমর্থনটা অনেক প্রয়োজন হবে। আর পেশা সম্পর্কে যথেষ্ট আগ্রহ ও ধারণা থাকতে হবে। তা না হলে প্রতিযোগীতার দৌড়ে টিকে থাকতে পারবে না।

তরুণ উদ্যোক্তা মনিরুল আরো বলেন, যেকোন উদ্যোগকে সফল করতে সর্বাগ্রে চাই সৃজনশীলতা। সাহস করুন, শুরু করুন, লেগে থাকুন, সাফল্য আসবেই। এরপর যে বিষয়টি সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ তা হলো জানা, বোঝা ও শেখা। একজন সফল উদ্যোক্তা হবার জন্য চারপাশ থেকে যেমন শিক্ষা নিতে হয়, তেমনি শিক্ষা নিতে হয় বই থেকেও। এমনটাই মনে করেন এ তরুণ উদ্যোক্তা। সমস্যা থেকেই সুযোগ। নতুন উদ্যোক্তাদের জন্য পরামর্শ হচ্ছে, যারা এখনো দোটানায় ভুগছেন, পারবো কি না, হবে কি না? এতো সমস্যা চারপাশে, যদি না সফল হই? তাহলে ভবিষ্যতে কী হবে? তাদের জন্য বলছি : সমস্যা থেকেই সফল উদ্যোগের জন্ম হয়। সমস্যাকে যিনি সুযোগে পরিণত করতে পারেন, তিনিই প্রকৃত উদ্যোক্তা।
কথায় আছে, সুযোগ জীবনে একবারই আসে, কিন্তু আসলেই কি তাই? না, সুযোগ সব সময়ই আপনার আশেপাশে ঘোরাঘুরি করে। শুধু সুযোগটাকে কাজে লাগাতে পারলেই আপনি হতে পারেন সফলদের একজন। সময়ের সাথে সাথে সুযোগের ধরনেও আসে পরিবর্তন। আর এ সময়োচিত সুযোগকে কাজে লগিয়ে সফল হয়েছেন এ রকমের উদাহরণ আছে ভুরি ভুরি। তেমনই একজন মনিরুল ইসলাম।
আজ সমাজের বুকে তরুণ উদ্যোক্তা হিসেবে প্রতিষ্ঠিত তিনি। এবং একজন তরুণ হিসেবে কাজ করে যাচ্ছেন হাজারো তরুণের স্বপ্ন পূরণের জন্য। মনিরুল ইসলাম শুধু দেশের মডেলদের নিয়েই কাজ করেন নি। বিদেশি মডেলরাও ছিলো তার কাজের সাথে সম্পৃক্ত। দেশের বাইরের মডেলদের সাথে আমাদের দেশের মডেলদের গুণগত মান সম্পর্কে তিনি বলেন, তারা খুব প্রফেশনাল। কাজটাকেই প্রাধান্য দেন। এই দিকটা আমাদের মডেলদের ভেতর খুব অভাব আছে।
আজ থেকে আরো দশ বছর পর নিজেকে কোন অবস্থানে দেখতে চান? জানতে চাইলে উত্তরে বলেন, কাজ ভালোবাসি, যত্ন আর দায়িত্ব নিয়ে কাজাটাই করতে চাই। আর সামর্থ্য অনুযায়ী হাজারো তরুণের স্বপ্ন পূরণ করে যেতে চাই। বিজ্ঞাপন এজেন্সিতে কেউ ক্যারিয়ার গড়তে চাইলে মনিরুল ইসলাম জানান, একটি ব্যবসায়িক অফিস থাকতে হবে, ট্রেড লাইসেন্স থাকতে হবে। মিনিমাম একটা পুজি তো লাগবেই। বিজ্ঞাপনী প্রতিষ্ঠান ও মডেলদের মধ্যে সমন্বয়ের মাধ্যম থাকতে হবে।
তার ছোট এই ক্যারিয়ারে সব সময় যাদের কাছ থেকে অনুপ্রেরণা পেয়েছেন মোতালেব হোসেন বরুন মামা, ফটোগ্রাফার ইকবাল আহমেদ, সানী মুনির ও হাবীব ভাইসহ আরো অনেকে। তাদের কাছে সব সময় কৃতজ্ঞ মনিরুল ইসলাম। ভাগ্য বিধাতা সর্বদাই কর্মঠ আর সাহসীদের পক্ষে থাকেন। চিরন্তন এই বাণীকে প্রমাণ করে সফলতার সিঁড়িতে অগ্রসর হওয়ার অদম্য ইচ্ছাশক্তি নিয়ে এগিয়ে চলেছেন এই প্রতিভাবন স্বপ্নবাজ তরুণ মনিরুল ইসলাম। অক্লান্ত পরিশ্রম ও চৌকস মেধায় গড়ে তোলা এই ‘ভারতুসো’ মিডিয়া ওয়ার্ল্ড থেকে আজ সফলতার সিঁড়িতে এসেছে স্বপ্নবাজ এই তরুণ উদ্যোক্তা।

আরো দেখুন

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত